বন্ধুর প্রেমে সহযোগিতা করায় ফেঁসে গেল রাজ মিস্ত্রী শ্রমিক তারেক

0
18

মোঃ সুমন মিয়া,জামালপুর জেলা প্রতিনিধি:: জামালপুর সদর উপজেলার তিতপল্লা ইউনিয়নের ডেফুলীবাড়ি গ্রামের হাফিজুরের ছেলে তাজেল ওরফে তারেক তার বন্ধু কেন্দুয়া পন্ডিতপাড়া এলাকার ইব্রাহীম ওরফে কালুর প্রেমে সহযোগিতা করার দায়ে ফেঁসে গেছেন তিনি। ওই ঘটনায় তার পরিবারকে মামলা দিয়ে ফাঁসানোর চেষ্ট করছেন মেয়ের বাবা শাহিন মিয়া। এ ব্যাপারে গতকাল রাতে একটি বাড়িতে প্রতিবাদ সভা করেছে তারেকের বাবা হাফিজুর। তিনি বলেন ডেফুলীবাড়ি এলাকার শাহীন মিয়ার কন্যা শারমিন খাতুন সম্প্রতি উপজেলার কেন্দুয়া ইউনিয়নের পন্ডিতপাড়া এলাকার মোঃ ইব্রাহীম ওরফে কালুর সঙ্গে সম্পর্ক করে বিয়ে করে। পরে ওই বিয়ে ছেলের অভিভাকরা মেনে না নিলে ঝামেলা সৃষ্টি হয়। পরে মেয়ের অভিভাক শাহীন মিয়া উপায়ন্ত না পেয়ে ইব্রাহীম ওরফে কালুর বন্ধু রাজমিস্ত্রী শ্রমিক তারেককে ফাঁসানোর পায়তারা চালায়। ঘটনার তারিখ মঙ্গলবার রাত ৮টার দিকে ডেফুলীবাড়ি গ্রামের দেলোয়ারের বাড়ির সামনে শাহীন মিয়ারা ওৎপেতে থেকে হাফিজুরদের উপর হামলা চালিয়ে উল্টে মামলা করে দেন হাফিজুরসহ তাদের আত্বীয় স্বজনদের উপর। এখনও তারা নিজ বাড়িতে যেতে হুমকীর সম্মুখীন হচ্ছে। এ ব্যাপারে শাহীন মিয়ার সাথে যোগাযোগের চেষ্টা করা হলে পাওয়া যায়নি তাকে। তিতপল্লা, কেন্দুয়া ও ঝাওগড়া ইউপির জনপ্রতিনিধিরা এই ঘটনার সমঝোতার চেষ্ট করলেও এর কোন সুফল আনতে পারেনি বলে জানান এলাকাবাসি।

উত্তর দিন

দয়া করে এখানে আপনার মন্তব্য লিখুন
দয়া করে এখানে আপনার নাম লিখুন